মো: ইমরান হোসেন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

যে দোকানে স্বপ্ন পুড়ে ছাই হল সেই নববধূ স্মৃতির

২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ১৫:৫১:৪২

ছবি: প্রতিনিধি

রাজধানীর চকবাজারের চুরিহাট্টায় বুধবার (২০ ফেব্রুয়ারি) রাতে আচমকা আগুনে পুরো এলাকায় পুরে যায়। ভয়াবহ এই অগ্নিকাণ্ডে নিহতের সংখ্যা নিয়েও বিভিন্ন বিভ্রান্তি দেখা দিয়েছে। এদিকে বিভিন্ন সূত্র থেকে প্রাপ্ত গণমাধ্যমে দেয়া নিহতের সংখ্যায় রয়েছে ভিন্নতা। এ সংখ্যা ৬৭, ৭৮ নাকি ৮১ ।

শুক্রবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সকালে ফায়ার সার্ভিস সদর দফতরের ডিউটি অফিসার মোহাম্মদ রাসেল বলেন, চকবাজার অগ্নিকাণ্ডে মোট নিহতের সংখ্যা ৬৭ জন নিশ্চিত হয়েছে। এর আগে গতকাল ফায়ার সার্ভিস ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র নিহতের সংখ্যা জানিয়েছিলেন ৭০। তবে ঢাকা জেলা প্রশাসন ৬৭টি মরদেহ পাওয়ার দাবি করেছে।

এই ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে পুড়ে ছাই হয় নববধূ আফরুজা সুলতানা স্মৃতির সংসার। চকবাজারের চুরিহাট্টায় ওয়াহিদ ম্যানশনের নিচ তলায় মোবাইল টেলিকমের ব্যবসা করত স্মৃতির স্বামী মাহবুর রহমান রাজু ও তার ছোট ভাই মাসুদ রানা।

চলতি বছরে ২৮ জানুয়ারি ধুমধাম করে মেয়ে আফরুজা সুলতানা স্মৃতির (২৪) বিয়ে দেন বাবা মো. আবুল খায়ের। বুধবার রাতের আচমকা আগুনে স্বামী মাহবুর রহমান রাজু ও তার ছোট ভাই মাসুদ রানা পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

মোবাইল দোকানে ঠিক পাশের দোকনটির নাম মুক্তা প্লাস্টিক। সেই দোকানে কর্মচারী নাসির ভাগ্যকর্মে এই ভয়াবহ দুর্ঘটানার হাত থেকে বেঁচে যান। আগুন লাগার ১০ মিনিট আগে তিনি দোকান বন্ধ করে মসজিদের পাশের গলিতেই চা খাচ্ছিলেন। তখন দোকানে মাহবুর রহমান রাজু ও তার ছোট ভাই মাসুদ রানাকে দোকানেই দেখে যান নাসির।

পরে ঘটনার ভয়াবহতা বিডি২৪লাইভের প্রতিবেদকের কাছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, আগুন লাগার পরে তারা দুই ভাই দোকানের সাটার লাগিয়ে ভিতরে রয়ে যায়। কিন্তু আগুন থেকে তাদের শেষ রক্ষা হয়নি।

বিডি২৪লাইভ/আইএইচ/এএস

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: