‘পাকিস্তান তৈরি থাকলে ভারতও যুদ্ধের জন্য প্রস্তুত’

২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ১৬:২৮:১৬

ছবি: ইন্টারনেট

পাকিস্তান যদি যুদ্ধের জন্য তৈরি থাকে, তাহলে ভারতও পিছিয়ে নেই। ‘আজ তক’-কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এমনটাই বললেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং।

গত সপ্তাহে পুলওয়ামায় ভয়াবহ জঙ্গি হামলার পর থেকেই ভারত-পাকিস্তান সম্পর্কের পারদ চড়েছে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বারবার বলেছেন, হামলার জবাব দিতে ভারতীয় সেনা সবরকমের স্বাধীনতা দেওয়া আছে। ওই হামলায় শহিদ হন ৪০ জন জওয়ান। ঘটনার পরই পাল্টা আঘাতে সেনাবাহিনী খতম করেছে জইশের একাধিক জঙ্গিকে। এ খবর দিয়েছে কলকাতা২৪।

যদিও পাকিস্তান এই হামলার দায় অস্বীকার করেছে। তবে গোয়েন্দাদের দাবি, আইএসআই-এর পরিলল্পনামাফিকই এই হামলা চালিয়েছে জইশ-ই-মহম্মদ।

সম্প্রতি এই ইস্যুতে পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানও একটি বার্তা দেন। পাকিস্তানের দোষ সম্পূর্ণ অস্বীকার করে তিনি বলেন, ভারত যুদ্ধ শুরু করলে পাকিস্তানও তার প্রত্যুত্তর দিতে প্রস্তুত।

এদিন সাক্ষাৎকারে রাজনাথ সিং বলেন যে পুলওয়ামা হামলার বদলা নেওয়া হবে, একথা তিনি বলছেন না। তবে তিনি মনে করিয়ে দেন যে নরেন্দ্র মোদী সেনাবাহিনীকে পূর্ণ স্বাধীনতা দিয়েছে। তিনি আরও জানিয়েছেন যে এই হামলার ইস্যুতে পাকিস্তান একেবারে একঘরে হয়ে পড়েছ, এমনকি চিনও ভারতকেই সমর্থন করেছে।

এদিকে, এলওসির কাছে পাক অধিকৃত কাশ্মীরে সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের ভয় তাড়া করছে পাকিস্তানকে৷ এর আগে সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের মাধ্যমেই প্রতিবেশী এই রাষ্ট্রকে উরি হামলার প্রত্যুত্তর দিয়েছিল ভারত৷ আর এবার পুলওয়ামাকাণ্ডে ফের এমন স্ট্রাইকের আশঙ্কায় পাকিস্তান তড়িঘড়ি পিওকে সীমান্তে সতর্কতা জারি করেছে বলে সংবাদ মাধ্যমের খবর৷

পুলওয়ামার হামলার পর দেশ জুড়ে উঠেছে বদলার দাবি৷ ফের একবার সার্জিক্যাল স্ট্রাইক হোক পাকিস্তানে৷ চাইছে আপামর ভারতবাসী৷ সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের আশঙ্কা করছে পাকিস্তানও৷ সম্ভবত সেই কারণে তড়িঘড়ি সীমান্ত বরাবর জঙ্গি ঘাঁটিগুলি সরিয়ে নিচ্ছে পাক সেনা৷ উরির হামলার পর পাক ভূখণ্ডে ঢুকে এই জঙ্গি ঘাঁটিগুলি গুড়িয়ে দিয়ে আসে ভারত৷

বিডি২৪লাইভ/এমআর

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: