‘আমার বউকে আমি নেব, গেইটে কেন টাকা দিব’

১২ এপ্রিল ২০১৯ , ১২:২৫:৪১

ছবি: ইন্টারনেট

বিয়ের অনুষ্ঠানে কনের বাড়ি বা মঞ্চে বর পক্ষকে গেইট পাস (নগদ টাকা) দেওয়ার রেওয়াজ চলমান। বিভিন্ন এলাকায় বিভিন্ন কায়দায় বর পক্ষ থেকে টাকা নেওয়া হয়। কেউ কেউ লটারি করেও বিভিন্ন অংকের টাকা তুলেন। কোন কোন জায়গায় এ ধরণের রীতিনীতি নিয়ে হরহামেশা ঝগড়াঝাটির খবর পাওয়া যায়।

কিন্তু এবার সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জে দেখা গেল অভিনব উল্টো চিত্র। আর বরপক্ষের এ অভিনব কায়দা প্রশংসা কুড়াচ্ছে। 

জানা গেছে বুধবার (১০ এপ্রিল) ফেঞ্চুগঞ্জের সামাদ প্লাজা কমিউনিটি সেন্টারে একটি বিয়ের অনুষ্ঠান ছিল। কনেপক্ষকে গেইট সেলামি তো দূরের কথা উল্টো বরপক্ষ এ রীতির বিরুদ্ধে বিভিন্ন বক্তব্যের প্ল্যাকার্ড তুলে ধরেন।

একটা প্ল্যাকার্ডে লেখা ছিল ‘বর কি এটিএম মেশিন?’ আরেকটি প্ল্যাকার্ডে লেখা ছিল ‘আমার বউকে আমি নেব, গেইটে কেন টাকা দিব’ আরেকটায় লেখা ছিল ‘গেইট ধরার নামে চাদাবাজি বন্ধ কর’।

এরকম প্ল্যাকার্ড দেখে প্রথমে হতভম্ব হয়ে যান বরপক্ষের লোকজন। কিন্তু পরক্ষণে তারাই সাধুবাদে মেতে উঠেন। বিয়ের দাওয়াতে আসা মেহমানরা দিনভর প্ল্যাকার্ড গুলোর প্রশংসা করেন। বিষয়টি আলোচনায় চলে আসে উপজেলাজুড়ে।

সাধারণ মানুষরা সাধুবাদ জানিয়ে বলেন, এ প্ল্যাকার্ড গুলো অনেক বড় অর্থ বহন করে। যারা মধ্যবিত্ত বা নিম্নবিত্ত বর তাদের জন্য প্ল্যাকার্ড গুলো আশীর্বাদ।

ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সভাপতি আব্দুল হাই নন্না বলেন, বিষয়টা আমার খুবই ভাল লেগেছে। সর্বত্র এরকম আওয়াজ উঠুক।

বিডি২৪লাইভ/এআইআর

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: