বিডি২৪লাইভকে দেয়া সাক্ষাৎকারে শ. ম. রেজাউল করিম

ভবন নির্মাণের প্ল্যান পাস করতে আর টেবিলে-টেবিলে ঘুরতে হবে না

১৫ এপ্রিল ২০১৯ , ০৭:৫৭:৫৬

ছবি: নিজস্ব

ভবন নির্মাণের ক্ষেত্রে প্ল্যান পাস করার জন্য কোন ব্যক্তিকে রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (রাজউক) এর টেবিলে-টেবিলে ঘুরতে হবে না। পহেলা মে থেকে অনলাইনে এ সেবা পাওয়া যাবে বলে জানিয়েন গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম।

সম্প্রতি সচিবালয়ে বিডি২৪লাইভ ডট কমকে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এ কথা জানান।

শ ম রেজাউল করিম বলেন, রাজউকে আগে একটি প্ল্যান পাস করতে গেলে ১৬টি স্তর অতিক্রম করতে হত। আমি মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পাওয়ার পর ১২টি স্তর বাদ দিয়েছি। অর্থাৎ ১৬টি স্তরের জায়গায় এখন মাত্র চারটি স্তরে নিয়ে এসেছি। আগামী ১ মে থেকে সব অটোমেশন সিস্টেম হবে। অর্থাৎ একটি প্ল্যান পাস করার জন্য কোন ব্যক্তিকে রাজউকের টেবিলে-টেবিলে ঘুরতে হবে না। বাসায় বসেই অনলাইনে প্ল্যান সাবমিট করতে পারবে।

মন্ত্রী বলেন, অনলাইনে প্ল্যান সাবমিট করার পর মোবাইলে ক্ষুদে বার্তা আসবে। এতে প্ল্যান অনুমোদিত হয়েছে কিনা অথবা কি কি কারণে প্ল্যান অনুমোদিত হয়নি তা বলে দেয়া হবে। তাই কোন ব্যক্তি চাইলে টেবিলে-টেবিলে না গিয়েও বাসায় বসে প্ল্যান সাবমিট করতে পারবেন। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে প্ল্যান পাস হয়ে যাবে।

তিনি বলেন, রাজউকে যেদিন থেকে যিনি সদস্য হয়েছেন সেদিন থেকে অনন্তকাল তিনি সেই জায়গায় ছিলেন। অর্থাৎ রাজউকে কোন সদস্যের কোনদিন দায়িত্ব মন্ত্রণালয় থেকে বন্টন করা হয়নি। কিন্তু সবাইকে তার কর্মস্থল পরিবর্তন করা দরকার বলে আমার কাছে মনে হয়েছিল। তাই আমি মন্ত্রণালয় থেকে রাজউকের সদস্যদের দায়িত্ব বন্টন করে দিয়েছি।

রাজউক, গণপূর্ত অধিদপ্তরের সর্বত্র ঢেলে সাজানো শুরু হয়েছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, আমরা অন্ধত্ব অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসতে চাই। রাজউকে মানুষের যে জনভোগান্তি সে ভোগান্তি দূর করতে চাই।

বিডি২৪লাইভ/এসএইচআর/এমআর

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: