প্রচ্ছদ / সারাবিশ্ব / বিস্তারিত

‘আমরা বিপদে, বাঁচান’

প্রকাশিত: ০৬:২৬ অপরাহ্ণ, ১৯ এপ্রিল ২০১৯

ছবি: ইন্টারনেট থেকে

সৌদি আরবের দুই তরুণী দেশ ছেড়ে পালিয়েছে। পালিয়ে যাওয়া ওই দুই তরুণী সম্পর্কে দুই বোন। বর্তমানে তারা আশ্রয় নিয়েছেন ইউরোপের দেশ জর্জিয়ায়। সেখান থেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একাধিক ভিডিও বার্তা পাঠাচ্ছেন তারা।

মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যমের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পালিয়ে যাওয়া ওই দুই তরুণীর এক জনের নাম মাহা আলসুবাই (২৮) এবং অন্যজনের নাম ওয়াফা আলসুবাই (২৮)। ‘জর্জিয়াসিস্টারস’ নামে টুইটারে একটি অ্যাকাউন্ট খুলে তাদের আর্তি, ‘‌জর্জিয়ায় আটকে। সৌদি প্রশাসন পাসপোর্ট বাতিল করে দিয়েছে। আমরা বিপদে। বাঁচান।’

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, টুইটারে নিজেদের পাসপোর্টের ছবির পাশাপাশি মাহা আলসু্বাই একটি ভিডিও আপ দিয়েছেন। সেখানে তিনি বলেছেন, ‘আমরা বিপদে।’

অন্য একটি ভিডিওতে ওয়াফা আলসুবাই বলছেন, ‘কোন নিরাপদ দেশে আশ্রয় চাই। দেশে ফিরলে মেরে ফেলবে।’

তবে, দ্বিতীয় ভিডিওটিতে মুখ দেখা না যাওয়ায় ওই তরুণী ওয়াফা কিনা তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তিনি জানিয়েছেন, পরিবারের অত্যাচারে তারা দেশ ছেড়ে পালিয়েছেন। দেশের দুর্বল আইন ব্যবস্থা তাদের রক্ষা করতে পারবে না।

জর্জিয়ার শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা জানিয়েছে, তারা বিষয়টির ওপরে নজর রাখছে। জর্জিয়ার অভ্যন্তরীণ মন্ত্রী জানিয়েছেন, এখন পর্যন্ত তাদের কাছে সাহায্য চাননি দুই তরুণী।

প্রসঙ্গত, সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান দেশটিতে নারীদের ক্ষমতায়নের কথা বললেও, সম্প্রতি একাধিক নারী দেশ ছেড়ে পালিয়েছেন।পালিয়ে যাওয়া ওই তরুণীদের দাবি, পরিবারের হাতেই চূড়ান্ত অত্যাচারিত হতে হচ্ছে তাদের।

গত বছর ভারতে পালিয়ে গিয়েছিলেন সৌদি এক রাজকুমারী। এ বছরের শুরুতে নাটকীয়ভাবে দেশ ছেড়ে পালান ১৮ বছরের সৌদি তরুণী রাহাফ মোহাম্মদ আল-কুনুন। পরে কানাডা আশ্রয় দেয় তাকে। মার্চেও একই ঘটনা ঘটে। সৌদি থেকে পালিয়ে দুই বোন আশ্রয় নিয়েছিল চীনের হংকং শহরে।

বিডি২৪লাইভ/এএস

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: