হাবিবুর রহমান

কুমিল্লা প্রতিনিধি

কুমিল্লায় মির্জা ফখরুল ইসলাম

‘আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর জোরে আ’লীগ ক্ষমতায় আছে’

২০ এপ্রিল, ২০১৯ ১৬:৪৬:০০

ছবি: প্রতিনিধি

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ বন্দুক-পিস্তল আর আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর জোরে ক্ষমতা দখল করে বসে আছে, বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

শনিবার (২০ এপ্রিল) একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সময় ক্ষতিগ্রস্ত নেতাকর্মীদের সঙ্গে সাক্ষাতের উদ্দেশে। শনিবার সকাল ৮টায় বিএনপির মহাসচিব তার উত্তরার বাসা থেকে কুমিল্লার পথে যাত্রা শুরু করেন।

যাত্রা পথে মির্জা ফখরুল বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদের নির্বাচনী এলাকায় মোকাম ইউনিয়নের কাবিলায় পথসভা করেন। সেখানে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের সদস্যদের সাথে কথা বলেন।

এ সময় তিনি বলেন, নির্বাচনে ক্ষতিগ্রস্তদের নিয়ে দেশব্যাপী আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। এ সফরে মির্জা ফখরুলের সাথে বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির নেতৃবৃন্দ রয়েছেন। বিকাল তিনটায় কুমিল্লা ১০ সংসদীয় এলাকার নোয়াগ্রামে ঐক্য ফ্রন্টের প্রার্থী মনিরুল হক চৌধুরী ও স্থানীয় নেতাকর্মীদের সাথে মতবিনিময় করে তিনি।

মির্জা ফখরুল বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার দেশের গণতন্ত্রকে ধ্বংস করে দিয়েছে, মানুষের অধিকারকে হরণ করে নিয়েছে। বন্দুক-পিস্তল আর আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর জোরে ক্ষমতা দখল করে বসে আছে তারা।

বিএনপির মহাসচিব বলেন, সবাইকে শক্ত হয়ে দাঁড়িয়ে থাকার জন্য ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে এবং আন্দোলন করার জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে। এই কঠিন লড়াইয়ে আমাদের পার হতে হবে। আর তার একমাত্র উপায় হলো নিজেদের মধ্যে ঐক্য থাকা।

তিনি বলেন, আমরা যে চিন্তা-ভাবনা থেকে দেশের জন্য যুদ্ধ করেছিলাম, সেই চিন্তা-ভাবনা আওয়ামী লীগ সরকার নষ্ট করে দিয়েছে।

মির্জা ফখরুল আরও বলেন, এই লড়াইয়ের মাধ্যমে দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করতে হবে, দেশনেত্রীকে মুক্ত করার জন্য লড়াই করতে হবে, বাংলাদেশে সত্যিকার অর্থে জনগণের জন্য একটা সরকার প্রতিষ্ঠায় লড়াই করতে হবে।
মতবিনিময় সভায় মির্জা ফখরুল নির্বাচনের সময় যে সমস্ত নেতাকর্মীরা নির্যাতিত হয়েছিলেন, মামলা হয়েছে এবং যারা কারাবরণ করেছেন তাদের প্রতি দলের পক্ষ থেকে প্রতিবাদ জানান।

এ সময় তিনি একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের লোকজনদের সঙ্গে কথা বলেন এবং তাদের সহযোগিতা প্রদান করেন।

বিডি২৪লাইভ/এজে

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: