গাড়িতে উঠলে বমি হয়? সমাধানের দারুণ উপায়

২৬ এপ্রিল ২০১৯ , ০৫:০২:২১

ছবি: ইন্টারনেট থেকে

অনেক মানুষের ভ্রমনের কথা শুনলেই মন আনন্দে ভরে যায়, ঠিক তেমনি কিছু মানুষের ভ্রমনের কথা শুনলেই গাঁয়ে যেন জ্বর এসে যায়। মাথা ঘোরা, গাঁ গোলানো, বমি বমি ভাব, অস্বস্তিবোধ কিছু মানুষকে অসহ্য করে তোলে গাড়িতে।

গাড়িতে এসব কিছুর কারণ হল মোশন সিকনেস। সাধারণত মোশন সিকনেসের কারণে গাড়িতে বমি বমি ভাব হয়। আর গাড়িতে মোশন সিকনেস কমিয়ে আনে তাজা লেবু। তেমনি তাজা লেবুর মতো আরো অনেক উপাদান আছে যা মোশন সিকনেস কমাতে সাহায্য করে।

আসুন জেনে নেয়া যাক গাড়িতে বমি কমিয়ে আনার কিছু দারুণ উপায়:

তাজা লেবুর গন্ধ নিমেষে গাঁ গোলানো কমিয়ে দিতে পারে। কাঁচা লেবু চুষে খেলেও হজমে সাহায্য করবে। বমি ভাব কেটে যাবে। আদা যে শুধু হজমে সাহায্য তাই নয়, গাঁ গোলানো, বমি ভাব কাটিয়ে দেয়। মুখে রাখুন আদা কুচি।

আকুপাংচার এবং আকুপ্রেশারেও বমি ভাব দূর করতে এই জায়গাটির ব্যবহার করা হয়। আপনার মধ্যমা এবং তর্জনী দিয়ে অথবা বৃদ্ধাঙ্গুলি দিয়ে কব্জির প্রেশার পয়েন্টে চাপ দিন। কব্জির ভাঁজ থেকে দুই ইঞ্চি ওপরে দুই টেন্ডনের মাঝে চাপ প্রয়োগ করুন এভাবে।

কাঁচা আপেলের মধ্যে থাকা চিনি অ্যাসিডিটি কমাতে সাহায্য করে। গাঁ গোলাতে শুরু করলে আস্তে আস্তে কামড়ে খেতে থাকুন। খুব বেশি গন্ধযুক্ত খাবার খেলে বেশি স্যালাইভা ক্ষরণ হয়। যার ফলে গাঁ গোলাতে পারে। খান শুকনো ক্র্যাকার।

মধু, পুদিনা পাতা খেলে বমি বমি ভাব কেটে যাবে। কারও কারও ক্ষেত্রে কাজে লাগে এসেনশিয়াল অয়েল। শরীরের অন্যান্য ইন্দ্রিয়কে উদ্দিপ্ত করলে মোশন সিকনেস কেটে যায়।

মোশন সিকনেস কমানোর জন্য অলিভের কোনও তুলনা নেই। কমলা লেবুর কোয়া বিটনুন লাগিয়ে খেলে বমি ভাব, গা গোলানো কমবে। শুধু বিটনুন জিভে দিলেও উপকার পাবেন।

গরম দুধের সঙ্গে দারচিনি মিশিয়ে খেলে বমি ভাব কাটে। তবে বাস বা ট্রেনে তা সম্ভব নয়। এক চামচ মধুর সঙ্গে দারচিনি গুঁড়ো মিশিয়ে খেয়ে নিতে পারেন। অথবা শুধু দারচিনি শুঁকলেও আরাম পাবেন।

বিডি২৪লাইভ/এএস

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: