হারুন অর রশিদ

পঞ্চগড় প্রতিনিধি

উচ্চ আদালতের মামলা গ্রাম আদালতে নিষ্পত্তি

২৮ এপ্রিল, ২০১৯ ১৭:৩০:০০

ছবি: প্রতীকী

পঞ্চগড়ে দেবীগঞ্জ উপজেলার ৩নং দেবীগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের গ্রাম আদালতে উচ্চ আদালতের মামলা নিষ্পত্তি হয়েছে। অল্প সময়ে স্বল্প খরচে অতিদ্রুতার সহিত গ্রামের প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর ছোট ছোট দেওয়ানী ও ফৌজদারী বিরোধ নিষ্পত্তি করতে নিরলস চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে দেবীগঞ্জের গ্রাম আদালত। সেই লক্ষে পঞ্চগড় জেলার দেবীগঞ্জ উপজেলার ৩নং দেবীগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদ গ্রাম আদালতের মাধ্যমে সাধারণ মানুষ সঠিক ও ন্যায় বিচার পাচ্ছে। এমনি করে দেবীগঞ্জ উপজেলার দহলা ঘাগড়াবাড়ী হাজী পাড়া গ্রামের একই পরিবারের মধ্যে ভাই ভাই পারিবারিক বিরোধ ধরে উচ্চ আদালতে মামলা দায়ের করে মোছা: সোনালী আক্তার। সেই মামলা চলমান অবস্থায় গ্রাম আদালতে নিষ্পত্তি করার জন্য উচ্চ আদালত গ্রাম আদালতে প্রেরণ করে। উক্ত মামলাটি গ্রাম আদালতে নথী ভুক্ত করা হয়।

মামলাটি গ্রাম আদালতে শুনানির মাধ্যমে গ্রাম আদালতের চেয়ারম্যান মো: আবু তোরাব সরকার, ইউপি সদস্যসহ ৫ সদস্য বিশিষ্ট গ্রাম আদালত গঠন করে রায় কার্যকর করেন।

রায়ে ক্ষতিপুরণ বাবদ ৬ হাজার টাকা প্রতিবাদী কর্তৃক আবেদনকারীকে দেওয়ার জন্য নির্দেশ প্রদান করেন।

রবিবার (২৮ এপ্রিল) দুপুরে দেবীগঞ্জ গ্রাম আদালতে গ্রাম আদালত চেয়ারম্যান মো: আবু তোরাব সরকার ইউপি সদস্যসহ ৫ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি আবেদনকারী মোছা: সোনালী আক্তারকে ৬ হাজার টাকা প্রদান করা হয়।

সোনালী আক্তার জানান, গ্রাম আদালতে আমি সঠিক ও ন্যায় বিচারে মাধ্যমে ক্ষতিপূরণ বাবদ ৬ হাজার টাকা পেয়ে খুব খুশি হয়েছি। গ্রাম আদালত সর্ম্পকে যদি জানতাম তাহলে গ্রাম আদালতে আরো আগে আসতাম ন্যায় বিচার পাওয়ার জন্য।

গ্রাম আদালতের মামলাটি পরিচালনা সহায়তা করেন, গ্রাম আদালত সহকারী শাকিলা সরকার। গ্রাম আদালত সূত্রে জানা গেছে, ফৌজদারী ২১টি মামলার এ পর্যন্ত এক লক্ষ ২৮ হাজার ৫শত টাকা আদায় করা হয়েছে। দেওয়ানী মামলার সাড়ে ৫২ শত জমি প্রতিবাদীদের আদায় করে দেয়া হয়েছে। এ পর্যন্ত মোট মামলা ১৬৫টি। বিধি ৩১ এবং ৩৮টি নিষ্পত্তি করা হয়েছে। প্রাক বিচারের মাধ্যমে ১৭টি নিষ্পত্তি ও গ্রাম আদালতে শুনানি মাধ্যমে ৬৭ নিষ্পত্তি করা হয়েছে। এ পর্যন্ত ১২টি মামলা চলমান রয়েছে। বাংলাদেশ গ্রাম আদালত সক্রিয়করণ দ্বিতীয় পর্যায়ে প্রকল্প স্থানীয় সরকার বিভাগ, স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন, সমবায় মন্ত্রণালয় এবং ইউরোপিয়ন ইউনিয়ন ও ইউএন ডিপি এ কার্যক্রম সহযোগিতা করছে।

বিডি২৪লাইভ/টিএএফ

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: