সাভারের গণ বিশ্ববিদ্যালয়

শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের জেরে শিক্ষকদের বেতন বন্ধ

১২ মে, ২০১৯ ২৩:৩২:০০

ছবি: প্রতিনিধি

মোহাম্মদ রনি খাঁ,
গণ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে:

সাভারের গণ বিশ্ববিদ্যালয়ে (গবি) শিক্ষক-কর্মকর্তাদের চলতি মাসের বেতন বন্ধ ঘোষণা করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

শনিবার (১১ মে) বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার মো. দেলোয়ার হোসেন স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ‘গত এক মাস ধরে বিশ্ববিদ্যালয়ে অচলাবস্থা বিরাজ করছে। ছাত্ররা বৈধ উপাচার্য নিয়োগ নিয়ে ক্লাস বর্জন করছে এবং সেমিস্টার ফি প্রদান থেকে বিরত রয়েছে। ফলশ্রুতিতে, বিশ্ববিদ্যালয়ের আর্থিক অবস্থার অবনতি ঘটেছে। এমতাবস্থায় শিক্ষক-কর্মকর্তাদের চলতি মাসের বেতন প্রদান করা সম্ভব হচ্ছেনা।’

এদিকে, রমজান মাস এবং ঈদ নিকটবর্তী হওয়ায় এ ঘোষণার পরে বিপাকে পড়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত অনেক শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী।

এ প্রসঙ্গে বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষক জানান, শিক্ষার্থীরা তো প্রতি মাসে মাসে টাকা দেয়না, তারা প্রতি ছয় মাস অন্তর টাকা জমা দেয়। এখন এক মাসের আন্দোলনকে কেন্দ্র করে শিক্ষকদের বেতন আটকে দেয়ার তো কোন যৌক্তিকতা দেখছি না।

বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের এমন ঘোষণায় অসন্তোষ প্রকাশ করে অনেক শিক্ষার্থী জানান, বৈধ উপাচার্যের আন্দোলনের সাথে বেতন বন্ধের কোনো যৌক্তিকতা নাই। আন্দোলন শুরু হওয়ার আগেই শিক্ষার্থীরা সেমিস্টার ফি প্রদান করেছে। রমজান মাস ও ঈদের কথা বিবেচনা করে প্রশাসনের উচিত এ সিদ্ধান্ত থেকে বের হয়ে আসা।


বৈধ উপাচার্য আন্দোলনের অন্যতম সদস্য মহসিন হোসেন জানান, আন্দোলনের সময় আমরা প্রশাসনকে ১০ দফা দাবি জানিয়েছি। সেখানে স্পষ্ট করে উল্লেখ্য ছিল শিক্ষকদের বেতন আটকানো যাবে না। এক্ষেত্রে এমন সিদ্ধান্ত অযৌক্তিক।

উল্লেখ্য, বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) কর্তৃক অনুমোদিত উপাচার্য নিয়োগের দাবিতে শিক্ষার্থীরা আন্দোলন করায় গত ৬ এপ্রিল থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্লাস, পরীক্ষাসহ সকল কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে।

বিডি২৪লাইভ/এইচকে

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: