প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

চত্রা নদীতে পুরোদমে চলছে খনন কাজ

প্রকাশিত: ০৩:২২ অপরাহ্ণ, ১৯ মে ২০১৯

ছবি: প্রতিনিধির পাঠানো।

রাজবাড়ীর পাংশা কালুখালী ও বালিয়াকান্দি উপজেলা সমূহের মধ্যে দিয়ে বয়ে যাওয়া চত্রা নদী খনন কাজ করছে পানি উন্নয়ন বোর্ড। বালিয়া কান্দির নারুয়া ইউ‌নিয়‌নে চত্রা নদীতে পুরোদমে চলছে খাল পুনঃ খননের কাজ। পানি উন্নয়ন বোর্ডের আওতায় নুনা টের্ডাসের তত্বাবধায়নে এ কাজের দায়ীত্ব পালন করে আমছেন পাংশার আ.লীগ নেতা ঠিকাদার গোলাম মোস্তফা লুলু। সুবিধাভ’গী এলাকাবাসী জানান, তারা দীর্ঘ অপেক্ষায় ছিলেন চত্রা নদী খনন কাজের। 

কারণ পলি মাটিতে খাল‌টি ক‌য়েক দশক ভরাট হয়ে থাকায় বর্ষা মৌসুমেও পানি থাকতো না। কৃষি ক্ষেতে সেচ, পাট জাগ দেয়া থেকে শুরু করে নানা কাজে পড়তে হতো বিপাকে। এখন খনন কাজের মাধ্যমে তা‌দের কষ্ট লাঘব হবে বলে তারা জানান। 

কাজের ঠিকাদার গোলাম মোস্তফা লুলু জানান, বর্তমান সরকারের উন্নয়ন ধরে রাখতে নকশা পরিকল্পনা অনুযায়ী এলাকাবা‌সিকে সাথে নিয়ে এ খনন কাজ করা হচ্ছে। সব সময় দেখভাল করছেন পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তারা। এদিকে, খালের পাশে রাখা মাটি এলাকাবাসী সরাতে না দেয়ায় পাকা রাস্তার আনুমানিক ৩০ ফুট অংশে ভাঙ্গন দেখা দিয়েছে। তবে খবর পে‌য়ে তাৎক্ষণিক সেই অংশ মেরামত এবং বাঁধ দেয়ার উদ্যোগ নিয়েছেন পানি উন্নয়ন বোর্ড কতৃপক্ষ। 

পানি উন্নয়ন বোর্ডের দায়ীত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এস ও হাসান আলী বলেন, এলাকাবাসী খালের মাটি নিজেদের কাজে ব্যবহার কর‌তে রাস্তার ওপর থেকে সরাতে না দেয়ায় এমনটা হয়েছে। এছাড়া ঝড়-বৃষ্টিতে ঢল না হলে এমনটা হওয়ার সুযোগ ছিলো না। বর্তমানে সব কিছু ঠিকঠাক ভাবেই চলছে। দ্রুতই কাজ শেষে খননের সুফল ভোগ করতে পারবেন এলাকাবাসী। 

বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের আওতায় নারুয়া থে‌কে মৃগী ইউ‌নিয়‌নের অং‌শে মোট ৭ কিলোমিটার এলাকা খনন কাজের ব্যায় ধরা হয়েছে ৭ কোটি ৯৮ লাখ টাকা। বর্তমান সরকারের উন্নয়নের ধারাবাহিকতায় দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে চলছে খাল পুন:খনন কাজ। যেখানে  মৎস্য চাষসহ কৃষকদের নানা সুবিধার্থে যেন সারা বছর খাল গুলোতে পানি থাকে এ জন্য এমন প্রকল্প হা‌তে নি‌য়ে‌ছেন শেখ হা‌সিনা সরকার। এ খনন কাজে সাধারণ কৃষক ব্যাপক ভাবে উপকৃত হবেন বলে বলছেন সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষ।

বিডি২৪লাইভ/এএস

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: