প্রেমের টানে ঘর ছাড়ার ভয়, মেয়ের পায়ে শিকল বেঁধেছেন বাবা

১৪ জানুয়ারি ২০২১, ১১:০৫:২২

প্রেমের টানে ঘর ছাড়ার ভয়ে মারধর করে মেয়ের পায়ে শিকল বেঁধে রেখেছেন বাবা-মা। পরে অভিযোগ পেয়ে পুলিশ ওই কিশোরীকে উদ্ধার করে। এ সময় আটক করা হয়েছে কিশোরীর বাবাকে। বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) ভোলার লালমোহন উপজেলার পশ্চিম চরউমেদ থেকে ৮ম শ্রেণিতে পড়ুয়া ছাত্রীকে উদ্ধার করে ভোলার সেফহোমে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় কিশোরীর বাবা ও মাকে আসামি করে মামলা দায়ের করেছেন স্থানীয় গ্রামপুলিশ।

স্থানীয়রা জানান, কিশোরীর ভগ্নিপতির বাড়িতে আসা-যাওয়ার সূত্রে পার্শ্ববর্তী এক ছেলের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক হয়। তাদের বিয়েও হয়েছে বলে কিশোরী দাবি করেছে। দুই সপ্তাহ আগে ওই ছেলের বাড়িতে গিয়ে ওঠে সে। পরে স্থানীয়রা কিশোরীকে তার বাবা-মায়ের কাছে তুলে দেন। সেখান থেকে বাড়িতে এনে তাকে শিকল দিয়ে বেঁধে রাখা হয়।

লালমোহন থানার ওসি মাকসুদুর রহমান মুরাদ জানান, কিশোরীকে তার ঘরে মারধর করে শিকল দিয়ে বেঁধে রাখা হয়েছে- এমন অভিযোগ পেয়ে তাকে উদ্ধার করা হয়।

 

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।