সরকার সকল ধর্মীয় জনগোষ্ঠীর কল্যাণে পর্যাপ্ত পরিমাণ উন্নয়ন কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছে 

১৭ জানুয়ারি ২০২১, ১১:২০:১৭

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী ও বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের চেয়ারম্যান মোঃ ফরিদুল হক খান বলেছেন, কোনো সম্প্রদায়কে পেছনে রেখে দেশের সামগ্রিক উন্নয়ন সম্ভব নয়। প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে উন্নত বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে সকল ধর্মীয় জনগোষ্ঠীর কল্যাণে পর্যাপ্ত পরিমাণ উন্নয়ন কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা হচ্ছে।

প্রতিমন্ত্রী আজ রবিবার (১৭ জানুয়ারি) মন্ত্রণালয়ে তাঁর অফিস কক্ষে অনুষ্ঠিত বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের ৯০তম বোর্ড সভায় সভাপতির বক্তব্যে এ সব কথা বলেন।

ফরিদুল হক খান বলেন, বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশের সংবিধানে ধর্ম নিরপেক্ষতার মূলনীতি যুক্ত করে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ বিনির্মাণের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করে গেছেন। প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বাংলাদেশ এখন সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির আদর্শ দেশ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।

প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, সংখ্যালঘু ধর্মীয় সম্প্রদায়সমূহের কল্যাণ ও নিরাপত্তা বিধানের মাধ্যমে বাংলাদেশকে আরো উন্নত দেশ হিসেবে গড়ে তুলতে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে।

সভায় প্রবারণা পূর্ণিমা ও কঠিন চীবরদান উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী প্রদত্ত অনুদান যথাযথভাবে সময়মত বিতরণের এবং ঢাকায় সার্বজনীন বৌদ্ধ শ্মশান নির্মাণ, ট্রাস্ট তহবিল বৃদ্ধি, ‘মুজিব শতবর্ষ’ উপলক্ষে ‘আশ্রয়ন প্রকল্পে’ বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের পক্ষ থেকে ২টি বাড়ি প্রদান বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

সভায় বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্টের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান-১ রমেশ চন্দ্র সেন এমপি, সংসদ সদস্য ট্রাস্টি বাসন্তী চাকমা, ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব ও ট্রাস্টি মোঃ নূরুল ইসলাম, ভাইস চেয়ারম্যান সুপ্ত ভূষণ বড়ুয়াসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।