প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

মোঃ গোলাম রব্বানী

খুলনা প্রতিনিধি

নতুন শিক্ষা কারিকুলামে ধর্মীয় শিক্ষা নিয়ে যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী

   
প্রকাশিত: ১০:৫০ অপরাহ্ণ, ৩ জুলাই ২০২২

ছবি - সংগৃহীত

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, নতুন শিক্ষা কারিকুলামে ধর্মীয় শিক্ষা আবশ্যিক বিষয়, এটা আছে এবং আবশ্যিক বিষয় হিসেবেই থাকবে। এটি বাদ যাওয়ার কোনো সুযোগ নেই। রবিবার (৩ জুলাই) সন্ধ্যায় খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য জগদীশ চন্দ্র বসু একাডেমিক ভবনে সাংবাদিক লিয়াকত আলী মিলনায়তনে আয়োজিত এক সম্মেলনের প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ধর্মীয় শিক্ষা বাদ দেয়ার কথা বলে বিভ্রান্তি ছড়ানো হচ্ছে। যারা এটিকে বাদ দেয়ার কথা বলছেন, তারা মূলত উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে বিভ্রান্তি ছড়ানোর চেষ্টা করছেন। শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে শিক্ষক নির্যাতনের যে ঘটনাগুলো ঘটেছে এগুলো মনে হচ্ছে সবই পূর্বপরিকল্পিত। যারা এ দেশে ধর্মের নামে অপরাজনীতি করে আমাদের সমাজটাকে পিছিয়ে নেবার চেষ্টা করছেন; যারা আমাদের উন্নয়নকে বাধাগ্রস্ত করার চেষ্টা করছেন তারা আজকে মাঠ গরম করার অন্যায় চেষ্টা করছেন।

এসময় শিক্ষামন্ত্রী বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় শুধু জ্ঞান অর্জনের জায়গা নয়, জ্ঞান সৃষ্টির জায়গা। আর এর জন্য প্রয়োজন গবেষণা। শিক্ষার প্রধান উদ্দেশ্য হলো মূল্যবোধ সৃষ্টি। এই মূল্যবোধের কারণে শিক্ষার্থীদের মাঝে মানবিকতার পাশাপাশি দায়িত্ববোধ গড়ে উঠবে। ২০২৫ সালের মধ্যে শিক্ষার গুণগতমান আরও বৃদ্ধি পাবে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞান, প্রকৌশল ও প্রযুক্তিবিদ্যা স্কুলের আয়োজনে ‘International Conference on STEM and the 4th Industrial Revolution, ২০২২’ শীর্ষক তিন দিনব্যাপী আন্তর্জাতিক সম্মেলনের সামপনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির উন্নতির ফলে দেশ আজ সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। আমাদের চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের সাফল্যের অংশীদার হতে হবে। বিজ্ঞান চর্চার পাশাপাশি আমাদের সাহিত্য, ইতিহাস, দর্শন বিদ্যার ওপর জ্ঞান অর্জন করতে হবে। সাহিত্য মানুষকে দক্ষ ও যোগ্য করে গড়ে তোলে। আত্মবিশ্বাস নিয়েই শিক্ষার্থীদের সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে।

নাঈম/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: