প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

মনিরুল ইসলাম

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি

কমলগঞ্জে দুর্বৃত্তদের হামলায় সাংবাদিক আহত

   
প্রকাশিত: ৯:৩২ অপরাহ্ণ, ১৩ আগস্ট ২০২২

কমলগঞ্জে দুর্বৃত্তদের হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন দৈনিক খবরপত্র পত্রিকার কমলগঞ্জ প্রতিনিধি আব্দুল বাছিত খাঁন। দুর্বৃত্তরা তাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে পালিয়ে যায়। আশংকাজনক অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। শনিবার (১৩ আগস্ট) দুপুরে কমলগঞ্জ-মৌলভীবাজার সড়কের উবাহাটা (মাদারিবন) এলাকায় হামলার এ ঘটনা ঘটে।

সাংবাদিক বাছিতের সাথে থাকা সাংবাদিক আমিনুল ইসলাম হিমেল জানান, মির্তিঙ্গা চা বাগানে চা শ্রমিকদের অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির সংবাদ সংগ্রহ করে কমলগঞ্জ উপজেলা যাচ্ছিলেন। পথে মুন্সীবাজার-কমলগঞ্জ সড়কের উবাহাটা এলাকায় পৌঁছলে হেমলেট পড়া তিন মোটরসাইকেল আরোহী তাদের পথ গতিরোধ করে দা বের করলে মোটরসাইকেল ফেলে তারা দুই দিকে পালান। এ সময় সাংবাদিক হিমেল দৌড়ে পালিয়ে গেলেও বাছিত কাঁদায় পড়ে গেলে দুর্বৃত্তরা তাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে মোটরসাইকেল নিয়ে মুন্সীবাজারের দিকে পালিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়রা গুরুতর আহত সাংবাদিক বাছিতকে উদ্ধার করে কমলগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। খবর পেয়ে কমলগঞ্জে কর্মরত সংবাদকর্মীরা এবং কমলগঞ্জ থানার ওসি ইয়ারদৌস হাসান হাসপাতালে ছুটে যান। তার অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় তাকে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে রেফার করেন। সেখান থেকে দ্রুত তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ হওয়ায় জ্ঞান হারান সাংবাদিক বাছিত। তাই বিকাল সাড়ে ৫টায় এ রিপোর্ট লিখা পর্যন্ত হামলার কারণ সম্পর্কে কোনো কিছু জানা সম্ভব হয়নি।

ঘটনার পর কমলগঞ্জ থানা পুলিশের ৩টি দল হামলাকারীদের শনাক্ত পূর্বক আটকে মাঠে নামে। ওসি ইয়ারদৌস হাসান, ওসি তদন্ত আব্দুর রাজ্জাকের নেতৃত্বে পুলিশের অপর দুটি দল মাঠে কাজ করছে। খবর পেয়ে সহকারী পুলিশ সুপার (শ্রীমঙ্গল-কমলগঞ্জ সার্কেল) শহীদুল হক মুন্সী ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। পুলিশের দলের সাথে কমলগঞ্জে কর্মরত সাংবাদিকরা রয়েছেন। কমলগঞ্জ থানার ওসি ইয়ারদৌস হাসান বলেন, দ্রুত সময়ের মধ্যে হামলাকারী দুর্বৃত্তদের শনাক্ত পূর্বক গ্রেফতার করা হবে।

সালাউদ্দিন/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: