প্রচ্ছদ / জেলার খবর / বিস্তারিত

মোঃ শাকিল শেখ

সাভার করেসপন্ডেন্ট

সাভারে জোড়া কন্যা শিশুর চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন চেয়ারম্যান রাজীব

   
প্রকাশিত: ১১:৪০ অপরাহ্ণ, ১৩ নভেম্বর ২০২২

সাভারের আশুলিয়ায় জন্ম নেওয়া দুই জোড়া কন্যা শিশুর সকল চিকিৎসার দায়িত্বভার নিয়েছেন সাভার উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুরুল আলম রাজীব। রবিবার (১৩ নভেম্বর) সকালে সাভার উপজেলা পরিষদ কার্যালয়ে সাহায্যের জন্য আসে এই দম্পতি। এসময় চেয়ারম্যান মঞ্জুরুল আলম রাজীব শিশু দুইটির আলাদা করার জন্য সকল ধরনের চিকিৎসার ব্যয় বহন করার দায়িত্ব নেওয়ার আশ্বাস দেন। শিশু দুটির পরিবার আশুলিয়ার পলাশবাড়ী এলাকায় একটি ভাড়া বাসায় থাকেন। তাদের গ্রামের বাড়ি দোহার থানার ওরঙ্গবাজ গ্রামে। সেলিম দোকানে গ্রিলের কাজ করেন।

জানা যায়, গত ১৩ মাস আগে আশুলিয়ার পলাশ বাড়ি এলাকায় সেলিম ও সীমা নামের এক দম্পতি ঘরে জন্ম নেয় জোড়া লাগানো শিশু। শিশু দুইটি চিকিৎসার জন্য এই দম্পতি যা ছিলো সবই খরচ হয়ে গেছে। শিশুটি দুইটিকে আগামী কয়েকমাস পরে ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসার অপরেশনের মাধ্যমে আলাদা করবেন বলে জানান পরিবারটি। কিন্ত অপরেশনের পর তাদের এক বছর চিকিৎসা করাতে হবে বলে জানান ডাক্তাররা। সেই ব্যয় ভার বহন করা কোন ভাবেই তাদের পক্ষে সম্ভব নয়।

দম্পতি জানান, গত কয়েক মাস যাবত তারা বিভিন্ন জায়গায় সাহায্যের জন্য আবেদন করলেও সাড়া পাননি কোথাও। কিন্তু উপজেলা চেয়ারম্যান তাদের এই বিপদাপন্ন অবস্থা দেখে কোনো সময় ব্যয় না করে বাচ্চাদের সকল চিকিৎসার ব্যয় বহন করার ব্যবস্থা গ্রহণ করেন। এ সময় জোড়া লাগানো শিশুদের মা-বাবা দুজনই উপজেলা চেয়ারম্যানের মহানুভবতায় মুগ্ধ হয়ে সৃষ্টিকর্তার কাছে তার দীর্ঘায়ু ও সুন্দর জীবনের জন্য প্রার্থনা করেন।

এব্যাপারো সাভার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মঞ্জুরুল আলম রাজীবের সাথে কথা বললে তিনি জানান, মানুষ মানুষের জন্য এই উক্তিটি মাথায় রেখে আমি সবসময় বিপদাপন্ন ও অসহায় দুস্থদের পাশে দাড়ানোর চেষ্টা করে যাচ্ছি। জোড়া লাগানো এই শিশুদের চিকিৎসার ব্যয়ের দায়িত্ব গ্রহন করে আমি শুধু চেয়ারম্যানের দায়িত্ব নয় বরং একজন মানুষ হিসেবে এই অবুঝ শিশুদের সুস্থ ও স্বাভাবিক জীবনযাপনের ব্যবস্থা করার একটি ক্ষুদ্র পদক্ষেপ নিয়েছি। ভবিষ্যতে যেন আমি এরকম ভাবে সকল মানুষের পাশে দাড়াতে পারি।

শাকিল/সাএ

বিডি২৪লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মন্তব্য: