সিরাজগঞ্জে

পিকআপভ্যান-অটোরিকশা সংঘর্ষে ২ জনের মর্মান্তিক মৃত্যু

১৮ নভেম্বর, ২০১৮ ০৮:০৯:০০

ছবি : প্রতীকী

সিরাজগঞ্জের সয়দাবাদে মুরগি বোঝাই পিকআপভ্যান-অটোরিকশার সংঘর্ষে দুইজন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এই দুর্ঘটনায় আহত হয়েছে আরও অন্তত তিনজন। গুরুতর আহতদের উদ্ধার করে স্থানী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

রবিবার (১৮ নভেম্বর) সকাল ৭টার দিকে বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম সংযোগ মহাসড়কের সয়দাবাদ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

তাৎক্ষণিকভাবে নিহতদের নাম পরিচয় জানা যায় নি।

এ বিষয়ে বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম থানার কনস্টেবল মো: জাহিদ গণমাধ্যমকে জানান, এ খবর পেয়ে থানার এসআই জহুরুল ইসলামের নেতৃত্বে একদল পুলিশ দুর্ঘটনাস্থল থেকে দুই পথচারীর লাশ উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ সদর হাসপাতালের মর্গে নিয়ে যায়। আহতদের স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

তাৎক্ষণিক হতাহতদের নাম-পরিচয় জানা যায়নি। দুর্ঘটনার পর পিকআপ ভ্যানটি দ্রুত বেগে পালিয়ে যায়। তবে চালকসহ এটিকে ধরতে অন্য থানাগুলোতে মেসেজ পাঠানো হয়েছে বলে জানায় পুলিশ।

এর আগে গত শুক্রবার ও শনিবার সড়ক দুর্ঘটনা পাঁচ জেলায় সাতজনের মৃত্যু হয়েছে।

রাজশাহীর পবা, ঢাকার সাভার, ময়মনসিংহের ত্রিশাল, গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়া ও গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে সড়ক দুর্ঘটনায় এই সাতজনের মৃত্যু হয়েছে।

এর মধ্যে পবায় যাত্রীবাহী একটি বাস গাছের সঙ্গে ধাক্কা লাগলে দুজনের মৃত্যু হয়। সাভারে পৃথক দুর্ঘটনায় পোশাক কারখানার শ্রমিকসহ মারা গেছে দুজন। ত্রিশালে এক যুবকের মৃত্যু হয় বাসচাপায়। ট্রলি উল্টে টুঙ্গিপাড়ায় মৃত্যু হয় এক শ্রমিকের। আর বাসের ধাক্কায় এক বৃদ্ধা মারা গেছে পলাশবাড়ীতে।

রাজশাহীতে গত শুক্রবার সকালে পবা উপজেলার হরিপুর এলাকায় ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কে দেশ ট্রাভেলসের একটি বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সঙ্গে ধাক্কা খায়। তাতে মৃত্যু হয় দুজনের। আহত হয় অন্তত ১০ জন। তাদের রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। নিহতদের একজন রাজশাহীর রাজপাড়া থানার কেশবপুর এলাকার আবদুল হালিম (৪৫)। তিনি ওই বাসের সুপারভাইজার বলে জানা গেছে। আরেকজন পবার হরিপুর এলাকার শুকুর শওকত আলী (৩০)। বাসটি চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে রাজশাহী হয়ে ঢাকা যাওয়ার কথা ছিল।

সাভারে গত শুক্রবার সকালে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের গেণ্ডা বাসস্ট্যান্ড এলাকায় ট্রাকের ধাক্কায় জামাল হোসেন (৩০) নামে এক ভ্যানচালকের মৃত্যু হয়। তিনি ভ্যান নিয়ে উলাইলের দিকে যাচ্ছিলেন। পেছন থেকে আসা একটি ট্রাক ধাক্কা দিলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। এদিকে ১০ দিন আগে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হীরা আক্তার নামে পোশাক খারখানার এক শ্রমিক মারা গেছেন। গত বৃহস্পতিবার রাতে সাভারের এনাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যু হয় তার।

ময়মনসিংহের ত্রিশালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের উকিলবাড়ী এলাকায় গত শুক্রবার সন্ধ্যায় বাসচাপায় নাসির উদ্দিন (৩০) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়। সন্ধ্যা ৬টার দিকে উকিলবাড়ী মোড় এলাকায় নাসির বাইসাইকেলে মহাসড়ক পার হচ্ছিলেন। তখন ঢাকাগামী বিআরটিসির একটি বাস চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই তাঁর মৃত্যু হয়। নাসির সদর উপজেলার চুরখাই গ্রামের আবু তাহেরের ছেলে।

গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় বালুবোঝাই ট্রলি উল্টে রহমাত উল্লাহ (২০) নামে এক শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। গত শুক্রবার দুপুরে টুঙ্গিপাড়া-বাঁশবাড়িয়া সড়কের কোনা গ্রামে এ দুর্ঘটনা ঘটে। রহমাত টুঙ্গিপাড়া উপজেলার পাটগাতী গ্রামের আব্দুল হামিদ মোল্যার ছেলে।

গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলা সদরের গাইবান্ধা-পলাশবাড়ী সড়কের খাদ্যগুদাম এলাকায় গত শুক্রবার বাসের ধাক্কায় জোবেদা বেওয়া (৭০) নামে এক ভ্যানযাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। তিনি বরিশাল ইউনিয়নের পশ্চিম গোপিনাথপুর গ্রামের মৃত ফয়জাল হকের স্ত্রী। পুলিশের ভাষ্য অনুযায়ী, ঢাকাগামী শ্যামলী পরিবহনের একটি বাসের ধাক্কায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

বিডি২৪লাইভ/টিএএফ

বিডি টুয়েন্টিফোর লাইভ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: